আন্তর্জাতিক ক্রিকেট টন্টনের মাঠে চিন্তায় স্পিনাররা

টন্টনের মাঠে চিন্তায় স্পিনাররা

6
0

টন্টনের মাঠ মানে পাওয়ার হিট আর রান বন্যা। আকারে ছোট হওয়ায় খুব সহজেই এই মাঠে রান হয় খুব দ্রুত। আর এই মাঠেই বাংলাদেশ তাদের পরবর্তী ম্যাচ খেলতে যাচ্ছে। আর তাই ম্যানেজমেন্ট কিছুটা উদ্বীগ্ন স্পিনারদের নিয়ে।

ব্রিস্টলের বৃষ্টি কালও পিছু ছাড়েনি বাংলাদেশ দলকে। টিম ম্যানেজমেন্ট অবশ্য ব্রিস্টলে থাকতেই ছুটি ঘোষণা করেছে-বৃহস্পতিবার দলের কোনো কার্যক্রম নেই। এ অবসরে ক্রিকেটাররা কেউ ঘরে বসে সময় কাটিয়েছেন, কেউ একটু ঘুরতে বেরিয়েছেন। ঘুরতে বেরিয়েও কি মজা আছে? ছুটিটা যে ইচ্ছেমতো কাজে লাগাবেন, সে উপায়ই-বা কই? এবার ইংল্যান্ডের গ্রীষ্ম এতটা বর্ষণমুখর হয়ে উঠবে, কে ভেবেছিল!

পরশু দলের ম্যানেজার খালেদ মাহমুদ বেশ বিরক্তি নিয়ে বলছিলেন, ‘ইংল্যান্ডের গত সামারেও কী রোদ! রোদের তাপে ঘাস নাকি হলুদ হয়ে গিয়েছিল! আর এবার আবহাওয়াটা এত খারাপ!’

বৃষ্টি কারও উপকার করছে, কারও ক্ষতি। সেই ক্ষতিগ্রস্তের তালিকায় বাংলাদেশ আছে সবার ওপরে। ব্রিস্টলে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ম্যাচে পয়েন্ট ভাগাভাগি করার পর টন্টনে এসেও বৃষ্টির চক্রে আটকা। যদিও ম্যাচটার আগে পাওয়া যাচ্ছে আরও চার দিন। আবহাওয়ার পূর্বাভাস বলছে, সোমবার ম্যাচের দিন বৃষ্টির সম্ভাবনা কম। বৃষ্টিবাধা না থাকলেও চিন্তার তো শেষ নেই।

টন্টনে এসে নতুন আলোচনা-মাঠটা অনেক ছোট! উইকেটও ভীষণ ব্যাটিংবান্ধব-৮ হাজার ধারণক্ষমতাসম্পন্ন কুপারস অ্যাসোসিয়েটস কাউন্টি গ্রাউন্ডে পাওয়ার হিটিংয়ে পারদর্শী ক্যারিবীয় ব্যাটসম্যানরা তো বাংলাদেশের বোলারদের পিটিয়ে ছাতু করবেন অনায়াসে!

পয়েন্ট টেবিলের হিসাব ক্রমেই কঠিন হয়ে পড়া বাংলাদেশের কাছে এখন প্রতিটিই ‘বাঁচা-মরা’র লড়াই। সাকিব তাঁর সেরাটা দিচ্ছেন, সামনেও এটি ধরে রাখবেন-এই আশা করাই যায়। কিন্তু বাকি স্পিনারদের কী ভূমিকা থাকবে?

টন্টনে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ম্যাচের আগে প্রশ্নটাই অবান্তর মনে হবে যখন জানবেন, ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে টিম ম্যানেজমেন্ট সাকিবের বাইরে আর কোনো বিশেষজ্ঞ স্পিনারই খেলাতে চায় না-এ মাঠে যে স্পিনাররা ব্রাত্য। অথচ কালও যোশি বলছিলেন, বাংলাদেশ দলের বোলিংয়ের মূল শক্তিই স্পিন!

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here